ধাবাউড়ায় পল্লীবিদ্যৎুতের লোডশেডিং যেন নিত্যসঙ্গী 

ধাবাউড়ায় পল্লীবিদ্যৎুতের লোডশেডিং যেন নিত্যসঙ্গী 

ধোবাউড়া প্রতিনিধি: ময়মনসিংহের ধোবাউড়ায় পল্লী বিদ্যৎুতের লোডশেডিং যেন নিত্যদিনের সঙ্গী অতিষ্ঠ হয়েপড়েছেসাধারন মানুষ। প্রথম রোজা থেকে প্রতিদিন সন্ধার পর প্রায় কয়েক ঘন্টা বিদ্যৎু থাকেনা কোনোভাবেই থামছে না পল্লী বিদ্যুতের লোডশেডিং তারাবির সালাত আদায় করতেকষ্ঠ হয় মুসল্লি দের। প্রতিদিন বিদ্যুৎ উৎপাদন বাড়ছে অথচ বিতরণ কোম্পানিগুলো প্রতিযোগিতা করছে লোডশেডিংয়ের। এ যেন লোডশেডিংয়ের নিত্যদিনের সঙ্গী। 

বিদ্যৎুতের যে,কোন সমস্যায় অফিসের নাম্বারে ফোনকরাহলে আসলে দেখাযায় ভিন্ন চিত্র,বারবার অফিসের নাম্বারে কল করলেও কেউ ফোন রিসিভ করেনি বলে অভিযোগ করেন গ্রাহকরা।গ্রাহকদের অভিযোগ শুধুবিলের সময় আসলে তাদের পাওয়া যায়।

এছাড়াও ইদ্রিস আলী নামক এক গ্রাহক এগারো মাস পৃর্বে মিটারের আবেদন করলেও গ্রাহককে বিদ্যৎু সংযোগ নাদিয়ে বিলের কাগজ পৌচেদিয়েছে গ্রাহক ইদ্রিস আলীর বাড়িতে।সাধারন মানুষের ভাষ্য সরকার বিদ্যুৎ উৎপাদন বাড়ানোর পাশাপাশি দেশব্যাপী বিদ্যুতের সাব স্টেশনগুলোও আপগ্রেড করছে। প্রতিটি প্রকল্পে হাজার হাজার কোটি টাকা বিনিয়োগ করছে। কিন্তু এর সুফল ঘরে তুলতে পারছে না বিদ্যুতের বিতরণ কোম্পানিগুলোর দুর্নীতি, লুটপাট আর ষড়যন্ত্রের কারণে। সবচেয়ে ভয়াবহ অবস্থায় পল্লী বিদ্যুতের বিভিন্ন সমিতিতে। এই অবস্থায় চরম বিপাকে পরছেন গ্রামের অটোরাইস মেইল আর বোরো চেস ওয়ালারা।

এব্যাপারে পল্লী বিদ্যৎু সমিতি ৩-এর ধোবাউড় সাবজোনাল অফিশের এজিএম আলীমুন রেজা তুহিন জানান নেত্রকোনা লাইনে সমস্যা চলছে এটা নিয়ে কথা হয়েছে আশাকরি সমস্যাটি সমাধান হয়ে যাবে