কেন্দুয়ায় বিবাহিতা এক নারীকে ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগ ৬ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা

কেন্দুয়ায় বিবাহিতা এক নারীকে ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগ ৬ জনের বিরুদ্ধে থানায় মামলা

কেন্দুয়া প্রতিনিধি: নেত্রকোনার কেন্দুয়া উপজেলার নওপাড়া ইউনিয়নের বিবাহিতা এক নারীকে ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগে ৬ জনের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে কেন্দুয়া থানায় মামলা দায়ের করা হয়েছে। রোববার বিবাহিতা এই নারী কেন্দুয়া থানায় এ মামলা দায়ের করেন। পুলিশ মামলার এজাহার ভ‚ক্ত আসামী পাঁচহার গ্রামের মোতালিবের ছেলে সোহেল মিয়াকে গ্রেফতার করে নেত্রকোনা আদালতে পাঠিয়েছে। মামলায় এজাহার সূত্রে জানা যায় গত ১ এপ্রিল পাঁচহার গ্রামের মৃত সোনামিয়া বেপারীর ছেলে রাজন মিয়া তার অন্যান্য সহকর্মীদের নিয়ে ওই নারীকে বাড়ির পাশে একটি জঙ্গলে নিয়ে ধর্ষনের চেষ্ঠা করে। আত্মরক্ষার জন্য চিৎকার দিয়ে স্থানীয় লোকজনের সহায়তায় ওই নারী তার নিজ বাড়িতে ফিরে আসেন। এ ঘটনায় সোনা মিয়ার ছেলে রাজন মিয়া, মতি মিয়ার ছেলে টিপু, নিজাম উদ্দিনের ছেলে রাণা, এবাদুলের ছেলে রুকেল মিয়া, সিদ্দিকের ছেলে গাজী ও মোতালিবের ছেলে সোহেল মিয়াকে এজাহার ভ‚ক্ত আসামী করে তিন দিন পর রোববার কেন্দুয়া থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। স্থানীয় লোকজন অভিযোগ তুলেছেন, ধর্ষনের ঘটনাটি অর্থ ও চাপের মুখে ধামাচাপা দিয়ে ধর্ষন চেষ্ঠার মামলা করেছেন। এ ব্যাপারে কেন্দুয়া থানার অফিসার ইনচার্জ কাজী শাহ নেওয়াজ বলেন, ধর্ষনের কোন ঘটনা ঘটেনি। ধর্ষন চেষ্টার অভিযোগে ৬ জনের বিরুদ্ধে নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করে একজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। যা বলাবলি হচ্ছে তা অপপ্রচার।