শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার দাবীতে নেত্রকোনায় সাধারণ শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন ! পুলিশের লাঠিচার্জ

শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেয়ার দাবীতে নেত্রকোনায় সাধারণ শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন ! পুলিশের লাঠিচার্জ

এ কে এম আব্দুল্লাহ্, নেত্রকোনা :  জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের স্থগিতকৃত সকল পরীক্ষা দ্রæত সময়ের মধ্যে গ্রহণ ও শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়াসহ ৫ দফা দাবিতে নেত্রকোনায় বিক্ষোভ ও মানববন্ধন করেছে সাধারণ শিক্ষার্থীরা। 
   নেত্রকোনা সরকারি কলেজসহ বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীরা বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টা থেকে সাড়ে ১২টা পর্যন্ত প্রেসক্লাবের সামনের সড়কে জড়ো হয়ে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ করে। সমাবেশে শিক্ষার্থীরা সরকারকে ৭২ ঘন্টার আল্টিমেটাম দিয়ে বলেন, এই সময়ের মধ্যে তাদের দাবি মানা না হলে পরবর্তী সময়ে কঠোর থেকে কঠোরতম লাগাতার আন্দোলন কর্মসূচি পালন করা হবে। মানববন্ধন শেষে শিক্ষার্থীরা মিছিল নিয়ে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের উদ্দেশ্যে রওনা দিলে হঠাৎ করে পুলিশ তাদের উপর লাটিচার্জ করে। এতে নিউজ ২৪ ও দৈনিক সংবাদের সাংবাদিক সোহান আহমেদসহ ৭ শিক্ষার্থী আহত হয়। আহত শিক্ষার্থীরা হলেন, ফাহিম খান পাঠান, ইমরান হোসেন, শাহনুর আলম, আতিকুর রহমান, জিহাদ মিয়া, খায়রুল ইসলাম। পরে বিক্ষুব্ধ শিক্ষার্থীরা পূনরায়  জড়ো হয়ে মিছিল নিয়ে জেলা প্রশাসকের কাছে গিয়ে এ ন্যাক্কার জনক ঘটনার ন্যায় বিচার প্রার্থনা করেন।
    আহত শিক্ষার্থী ফাহিম খান পাঠান সাংবাদিকদের কাছে ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, সাধারণ শিক্ষার্থীদের শান্তিপূর্ণ কর্মসূচীতে পুলিশের এ ধরণের লাঠিচার্জ সভ্য সমাজে কাম্য নয়। আমরা এই ন্যাক্কার জনক ঘটনার তীব্র নিন্দা জানাই এবং ঘটনার সাথে জড়িতদের শাস্তির দাবী জানাচ্ছি।
  এ ব্যাপারে পুলিশ সুপার আকবর আলী মুন্সী’র সাথে যোগাযোগ করলে তিনি  বলেন, বিষয়টি খতিয়ে দেখে যারাই এ ঘটনার সাথে জড়িত তাদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় ব্যবস্থা নেয়া হবে।