মদনে অন্তঃসত্বা গৃহবধূকে মারপিটের অভিযোগ

মদনে অন্তঃসত্বা গৃহবধূকে মারপিটের অভিযোগ

মদন প্রতিনিধি : নেত্রকোনার মদনের পল্লীতে নাঈমা আক্তার (২৬) নামের অন্তঃসত্বা এক গৃহবধূকে মারপিট করায় সে নিজেই বাদী হয়ে সোমবার বিকালে মদন থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার তিয়শ্রী ইউনিয়নের শিবপাশা গ্রামে। মারপিটের স্বীকার গৃহবধূ শিবপাশা গ্রামের তৌহিদ মিয়ার স্ত্রী। পুলিশ ও এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, তৌহিদ মিয়ার ২য় শ্রেনির স্কুল পড়ুয়া মেয়ে শারমিন শিবপাশা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সড়কের পাশে কচুর লথি তুলতে গেলে একই গ্রামের শাজাহান মিয়ার ছেলে রানা মারধর করতে থাকে। এ সময় শারমিনের মা নাঈমা আক্তার  ফেরাতে এলে  রানাসহ তার বাবা শাহাজান, দারোগ আলী, চঞ্চল বেধড়ক পেটাতে থাকলে আশপাশের লোকজন থাকে উদ্ধার করে। নাঈমা প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে সোমবার বিকালে মদন থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন। নাঈমা আক্তার জানান, আমি ৫ মাসের অন্তসত্তা। সোমবার দুপুরে আমার মেয়ে শারমিন শিবপাশা সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সামনের সড়কের পাশে কচুর লথি তুলতে গেলে শাজাহানের ছেলে রানা মারধর করলে আমি এতে প্রতিবাদ করি। এতে ক্ষিপ্ত হয়ে রানা, শাজাহান, দারোগ আলী, চঞ্চল আমাকেও মারধর করতে থাকে। আশপাশের লোকজন আমাকে উদ্ধার প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়। বিচারের জন্য আমি মদন থানায় একটি লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছি। সংশ্লিষ্ট ইউপি সদস্য আইনুল হক জানান, নাঈমা নামের এক গৃহবধূকে মারপিট করেছে। আমি ঘটনা স্থলে গিয়ে ঝগড়া থামিয়ে এসেছি।  মদন থানার এস আই আশরাউল ইসলাম অভিযোগ পাওয়ার সত্যত্যা নিশ্চিত করে বলেন, এ ব্যাপারে যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।