বাবার সাথে মুক্তিপন আদায়ের নাটক সাজাতে গিয়ে ফেঁসে গেল ছেলে

 বাবার সাথে মুক্তিপন আদায়ের নাটক সাজাতে গিয়ে ফেঁসে গেল ছেলে

মদন  নেত্রকোনা) প্রতিনিধি ঃ নেত্রকোনার মদনে বাবার নিকট থেকে টাকা আদায় করতে মুক্তিপনের নাটক সাজাতে গিয়ে ফেঁসে গেল ছেলেসহ দুই বন্ধু। শনিবার রাতে উপজেলার পদমশ্রী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।
পুলিশ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার পদমশ্রী গ্রামের জাহেদ আলীর ছেলে জুয়ারী  শাহীন (২০) বাবার নিকট থেকে টাকা আদায় করার জন্য বন্ধু মনিকা গ্রামের আবুল কাসেমের ছেলে সাগর ও একই গ্রামের নূরুল ইসলামের ছেলে তৌফিক (২০) ফন্দী করে । শাহীন মোবাইল ফোন থেকে বাবা জাহেদ আলীকে জানায় তাকে অপহরণ করা হয়েছে। মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে তাকে উদ্ধার করতে হবে। বাবা মোবাইল পেয়ে  শাহীনের মামা বকুলকে বিষয়টি জানালে তিনি মদন থানাকে অবগত করে। মদন থানা পুলিশ শাহীনের মোবাইল লোকেশান  ট্রাকিং করে উপজেলার বৃবরিকান্দি থেকে বন্ধুদের সহযোগিতায় তাকেসহ বন্ধুদের আটক করা হয়। এ ঘটনায় উপজেলায় চাঞ্চলের সৃষ্টি হয়েছে।
শাহীনের চাচা কফিল উদ্দিন  জানান,আমরা যে ফোন দেই সে ধরে না,পরে বন্ধুদের ফোনের মাধ্যমেই তাদের আটক করেছে পুলিশ। মূলত টাকার জন্যই তারা এ নাটকটি সাজিয়েছে। পরে থানা পুলিশ ,পুলিশ সুপারের নিকট তৃতীয় লিঙ্গের কথা বলে আমরা মুচলে দিয়ে তাদের ছাড়িয়ে এনেছি।
এস আই নূরুল আমিন জানান, শনিবার রাতে পদমশ্রী গ্রামের জাহেদ আলীর ছেলে শাহীন বন্ধুদের নিয়ে একটি  অপরহণের নাটক সাজিয়ে মুক্তিপনের জন্য বাবার নিকট মোটা অংকের টাকা চায়। পরে আমরা তার মোবাইল লোকেশন ট্রাকিং করে বন্ধুদের সহযোগিতায় তাকেসহ তিনজনকেই আটক করি। পরে মুচলে নিয়ে ছেড়ে দেওয়া হয়।