পূর্বধলা উপজেলা পরিষদে জনস্বার্থে রাস্তা বন্ধ করে অন্যত্র চালু

পূর্বধলা উপজেলা পরিষদে জনস্বার্থে রাস্তা বন্ধ করে অন্যত্র চালু
পূর্বধলা উপজেলা পরিষদে জনস্বার্থে রাস্তা বন্ধ করে অন্যত্র চালু


মোঃ এমদাদুল ইসলাম, নেত্রকোণা প্রতিনিধি:নেত্রকোণার পূর্বধলায় জনস্বার্থে উপজেলা পরিষদের আবাসিক এলাকার রাস্তা বন্ধ করে অন্য দিকে রাস্তা চালু করে সীমান প্রাচীর নির্ধারণ করে দিয়েছে উপজেলা নির্বাহী অফিসার উম্মে কুলসুম। আজ মঙ্গলবার (২৪ মার্চ) নিরাপত্তার কথা বলে চলাচলের রাস্তা বন্ধ করে সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করেছেন তিনি। এসময় উপস্থিত ছিলেন, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জাহিদুল ইসলাম সুজন, ভাইস চেয়ারম্যান শেখ রাজু আহমেদ রাজ্জাক সরকার, প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ সাইফুল ইসলাম, উপজেলা প্রকৌশলী গোলাম সামদানী, সমাজসেবা কর্মকর্তা মোঃ সাইফুল আলম, সদর ইউপি চেয়ারম্যান আপ্তাব উদ্দিন, গণ্যমান্য ব্যক্তি সাবেক জারিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মতিউর রহমান তালুকদার, সাবেক ঘাগড়া ইউপি চেয়ারম্যান আহাম্মদ আলী প্রমুখ।
জানা গেছে, উপজেলা পরিষদ চত্বর এলাকার মুষ্টিময় কয়েকটি পরিবার বসবাস করে। কিন্তু তারা উপজেলা পরিষদের সংরক্ষিত এলাকার ভিতর দিয়ে যাতায়াত করে আসছে। উপজেলা প্রশাসনের নিরাপত্তা ও জনস্বার্থে প্রতিদিন অবাধ চলাফেরার সড়কটি বন্ধ পিছন দিকে রাবেয়া আলী মহিলা ডিগ্রী কলেজ রাস্তার সাথে সংযোগ স্থাপন দিয়েছেন। আরও জানা যায়, পূর্বে থেকেই দেয়াল থাকার পরেও কিছু অংশ ভেঙ্গে ময়লা আবর্জনা আবাসিক এলাকায় ফেলেছেন অনেক পরিবার এবং উক্ত রাস্তা দিয়ে চোর-ডাকাত, মাদকসেবীদের উপদ্রব  ও অসাধু ব্যক্তিবর্গ চলাচল করতেন বলে ধারণা করা হয়।
অপরদিকে স্থানীয় বাসিন্দা ইসতিয়াকুর রহমান বাবু জানান, হঠাৎ করে উক্ত বন্ধ করলে সাধারণ মানুষ ও শিক্ষার্থীদের চলাচল করতে চরম অসুবিধায় পরতে হবে। মুসল্লীদের নামাজে যেতে অসুবিধার সম্মুখিন হবে। তিনি বিকল্প রাস্তা আগে তৈরি করে পরবর্তীতে এ রাস্তা বন্ধ করার দাবী জানান।
এ বিষয়ে ইউএনও উম্মে কুলসুম বলেন, “উপজেলা পরিষদ চত্বর ও উপজেলার বিভিন্ন প্রশাসনিক দপ্তরের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার জন্য রাস্তা বন্ধ করে অন্যত্র সীমানা প্রাচীর নির্মাণ করা হয়। মানুষের দুর্ভোগ লাঘবের জন্য উপজেলা পরিষদের পিছন দিয়ে বিকল্প রাস্তা বের করে দেওয়া হয়েছে।”