মদনে দু-পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ আহত ২৫, থানায় মামলা ,প্রেফতার -৬

 মদনে দু-পক্ষের সংঘর্ষে নারীসহ আহত ২৫, থানায় মামলা ,প্রেফতার -৬

মদন  প্রতিনিধিঃ ঠেলাগাড়ি দিয়ে বোরো ধানের চারা  নেয়াকে কেন্দ্র্র করে নেত্রকোনার মদনে দু-পক্ষের সংষর্ষে নারীসহ ২৫ জন আহত হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। সংঘর্ষে   আহত নুশাদ,এরশাদ,হারেস,রোকেয়া,রতন,ওয়াসীম,সফুরা আক্তার,রোকন,হান্নান,জেলন,মোমেন,করিম ও খোকনের অবস্থা আশঙ্কাজনক থাকায় ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়েছে । বাকী আহত সাইদুল ,সনু মিয়া, আশাদুল, রেবেকা, সাগর, হবুল মিয়া, হান্নান, সবিকুল, তাহের, ঋতু আক্তার, হালিমা ও আঙ্গুরা মদন হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে।
এ ব্যাপারে  আহত সাইদুলের মা খালেদা আক্তার বাদী হয়ে শনিবার রাতে ১৭ জনের নাম উল্লেকসহ  অজ্ঞাত ১০/১৫ জনকে আসামি করে মদন থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ঘটনায় জড়িত থাকায় নূরে আলম,বুলবুল আহম্মেদ,রুবেল,মাসুম,আনোয়ার মিয়া ও পল্লী চিকিৎসক হানিফ মিয়াকে  হাসপাতাল থেকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। রোববার দুপুরে গ্রেফতারকৃতদেরকে নেত্রকোনা কোর্ট হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।
জানা যায়, উপজেলা বনতিয়শ্রী গ্রামের মৃত আব্দুল বারেকের ছেলে সাইদুলের ঠেলাগাড়িটি তাকে না বলে  একই গ্রামের রাশিদের ছেলে করিম বোরো ধানের চারা হাওরে নিয়ে যায়।  এ নিয়ে    দু-জনের মধ্যে বাকবিতন্ডার এক পর্যায়ে  শনিবার সন্ধ্যায় উপজেলার ফতেপুর ইউনিয়নের বনতিয়শ্রী গ্রামের মাইজপাড়া মসজিদের সামনে এ ঘটনা ঘটে।   
ওসি মোঃ রমিজুল হক জানান, এ ব্যাপারে জখমি এরশাদের মা খালেদা আক্তার বাদী হয়ে  ১৫ জনের নাম উল্লেখসহ  অজ্ঞাত  ১০/১৫ জনকে আসামি করে ওই রাতেই একটি মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ উক্ত ঘটনার সাথে জড়িত ৬জনকে গ্রেফতার করে রোববার নেত্রকোনা কোর্ট হাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। এলাকার পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে রাখার জন্য ঘটনাস্থলে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।