শেষ হলো উকিল বাড়িতে নেতাকর্মীদের মিলন মেলা

সমরেন্দ্র বিশ্বশর্মা, স্টাফ রিপোর্টার :  শেষ হলো উকিল বাড়িতে দলীয় নেতাকর্মীদের ৯ দিনের প্রাণের মিলন মেলা। রোববার সূর্যাস্থের কিছু আগে কেন্দুয়া পৌর শহরের সাউদপাড়াস্থ উকিল বাড়ির প্রিয় প্রাঙ্গণ থেকে দলীয় নেতাকর্মীদের হৃদয়ের গভীর ভালবাসা ও শুভেচ্ছা জানিয়ে বিদায় নিলেন, সবার প্রিয়জন বাংলাদেশ যুব মহিলালীগের সাধারন সম্পাদক সাবেক এম.পি অধ্যাপক অপু উকিল ও আওয়ামীলীগের সংস্কৃতি বিষয়ক সম্পাদক সৎ, কর্মঠ এবং মানবিক এমপি অসীম কুমার উকিল। তাদের বিদায় লগ্নে নেতাকর্মীদের মনছিল বিষন্ন এবং বেদনা বিধুর। বিদায় লগ্নে ফটো সেশনে প্রিয় প্রাঙ্গণে অংশ নেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এডভোকেট আব্দুল কাদির ভ‚ঞা ও সাধারন সম্পাদক পৌর মেয়র মোঃ আসাদুল হক ভ‚ঞা সহ দলের সব সারির অসংখ্য নেতাকর্মী। কেউই যেন তাদের বিদায় মেনে নিতে পারছিলেন না। ৯ দিন এক সঙ্গে শারদীয় দূর্গাৎসব ও শুভ বিজয়ার আনন্দ ভাগাভাগি ছাড়াও এমপি অসীম কুমার উকিল কাক ডাকা ভোরে ঘুম থেকে ওঠে প্রাতরাশ সেরে নেতাকর্মীদের নিয়ে মোটর সাইকেলেই বেরিয়ে পড়তেন গ্রামের নবীর প্রবীন আওয়ামীলীগ নেতাদের মেলবন্ধন ঘটাতে। এছাড়া ১৭ বছর পর অনুষ্ঠিত উপজেলা আওয়ামীলীগের সম্মেলনের পর গত শুক্রবার বিকাল থেকে রাত পর্যন্ত অনুষ্ঠিত হয় নতুন পূর্ণাঙ্গ কমিটির পরিচিতি ও মতবিনিময় সভা। দলীয় কার্যালয় ও উকিলবাড়ির প্রিয় প্রাঙ্গণে পৃথক পৃথক সভায় সবার মুখে ছিল প্রাণের হাসি। দীর্ঘদিন পর নতুন কমিটি অসীম কুমার উকিল ও অপু উকিলের পৃষ্ঠপোষকতায় নতুন সভাপতি এডভোকেট আব্দুল কাদির ভ‚ঞা ও সাধারন সম্পাদক পৌর মেয়র মোঃ আসাদুল হক ভ‚ঞার নেতৃত্বে আওয়ামীলীগের নতুন কমিটির নতুন যাত্রা শুরুর প্রাক্কালে তাদের অঙ্গীকার ছিল সারা বাংলাদেশের মধ্যে কেন্দুয়া উপজেলার আওয়ামীলীগ হবে, মডেল আওয়ামীলীগ। অপর দিকে সকাল থেকে শুরু করে রাত অবদি নেত্রকোণা, কিশোরগঞ্জ, ময়মনসিংহ, মদন, মোহনগঞ্জ, খালিয়াজুড়ি সহ কেন্দুয়া আটপাড়ার নেতাকর্মীদের বাইরেও সকল শ্রেনী পেশার মানুষ তাদের বিভিন্ন সমস্যা সম্ভাবনার বিষয় নিয়ে ছুটে আসেন উকিল বাড়িতে। তাদের সকলের চাহিদা অনুসারে পর্যায়ক্রমে তাদের কাজ করার দৃঢ় অঙ্গীকার ব্যক্ত করায় আগত নেতাকর্মী সহ সকল মানুষ হাসিমুখেই বাড়ি ফেরেন। গতকাল অসীম অপুর বিদায় লগ্নে সবার মুখে মুখে একটা কথাই ছিল, তাদের শূন্যতা আমাদের অনেক বেদনা দেয়। নেতাকর্মী সহ সকল মানুষের জবাব দিতে গিয়ে অসীম ও অপু উকিল বলেন, আমরা যদিও ঢাকা যাচ্ছি, এলাকার বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজের চাহিদা পূরণ করতে, তবু আমাদের মনটা পড়ে থাকে কেন্দুয়া আটপাড়া তথা নেত্রকোণার মাটিতে। বিদায় লগ্নে সকলের শুভ কামনা করে অসীম অপু বলেন, সব ভেদাভেদ ভুলে গিয়ে সবাই ভাল থাকবেন আমাদের ভাল থাকার জন্য দোয়া আশ্বির্বাদ করবেন।